রাঙামাটিতে বজ্রপাতে নারীসহ ৪ জনের মৃত্যু প্রধান শিক্ষক আবুজার গাফ্ফারীর ঘোড়ার গাড়ি করে বিদায়ী সংবর্ধনা সেন্টমার্টিনে ২৩’শ পরিবারের মধ্যে সরকারি সহায়তার চাল বিতরণ নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিদের সাথে নাগরিক প্লাটফর্ম ও যুব ফোরামের সংলাপ অনুষ্ঠিত সারাদেশে চলাচলকারী আন্তঃনগর ট্রেন বন্ধ থাকবে ঈদের দিন লেগেছে ঈদের আঁচ,অভয়নগরে টুংটাং শব্দে মুখরিত কামারপাড়া জয়পুরহাটে ৫ শত বছরের ঐতিহ্যবাহী ঘুড়ির মেলা মিয়ানমারে সীমান্তে নেই বিস্ফোরণের শব্দ, সরে গেছে যুদ্ধজাহাজও অনিরাপদ ঘুমধুমের টিভি টাওয়ার গরুর হাট শ্যামনগরে সুবিধাবঞ্চিত মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে 'ভাব বাংলাদেশে'র শিক্ষাবৃত্তি প্রদান টিকিট থাকা সত্ত্বেও চড়া দামে বিক্রি, বিপাকে যাত্রীরা পত্নীতলায় ভুটভুটির ধাক্কায় প্রাণ গেল এক বৃদ্ধের সেবা মুক্ত স্কাউট দলের উদ্যোগে দরিদ্র ও দুস্থ মহিলাদের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ দুই শতাধিক পরিবারের মুখে হাসি ফুটালো ‘ভয়েস অব ঝিনাইগাতী’ শিকড় ঝিনাইগাতীর আয়োজনে ঈদুল আযহার পরদিন এসএসসি ও এইচএসসিতে কৃতিত্ব অর্জনকারী শিক্ষার্থীদের মধ্যে সংবর্ধনা ও পুরস্কার দেওয়া হবে সড়ক দুর্ঘটনায় শেরপুর জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান আবু তাহের গুরুতর আহত, সুস্থতার জন্য সকলের নিকট দোয়া প্রার্থী সাতক্ষীরায় ২৪১ জনকে ১৭ লাখ ৮৪ হাজার টাকার অনুদানের চেক প্রদান ঈদের ছুটিতে পর্যটক বরণে প্রস্তুত কক্সবাজার টেকনাফ সমুদ্র সৈকতে ভেসে এলো অর্ধগলিত মৃতদেহ সেন্টমার্টিনের নাগরিকদের পাশে সরকার সবসময় আছে

পশ্চিম কানাডার ৩০ হাজার মানুষকে ঘরবাড়ি ছাড়ার নির্দেশ

কানাডার পশ্চিমাঞ্চলে ভয়াবহ দাবানল ছড়িয়ে পড়ায় নতুন করে লোকজনকে সরিয়ে নেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। কর্তৃপক্ষ ১শ’টিরও বেশি সক্রিয় দাবানল চিহ্নিত করার পর এমন নির্দেশ দিয়েছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা এএফপি।


প্রতিবেদনে বলা হয়, আলবার্টার প্রায় ৩০ হাজার মানুষকে তাদের ঘরবাড়ি ছেড়ে চলে যেতে বলা হয়েছে। সেখানে এখনো দুই ডজনেরও বেশি দাবানল নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়নি। সেখানের পরিস্থিতিকে ‘নজিরবিহীন’ আখ্যায়িত করে আলবার্টার প্রধানমন্ত্রী ড্যানিয়েল স্মিথ শনিবার জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেছেন।


তিনি বলেন, বিশ্বের বৃহত্তম তেল উৎপাদনকারী অঞ্চলগুলোর অন্যতম এ প্রদেশে উষ্ণ তাপমাত্রা ও খরা পরিস্থিতি বিরাজ করছে। সত্যিকার অর্থে এমন অসহনীয় তাপমাত্রার কারণে এসব দাবানলের সূত্রপাত।


আলবার্টার দাবানল সংস্থার মুখপাত্র, ক্রিস্টি টুকার বলেছেন, ‘প্রদেশের দক্ষিণ অংশে বিক্ষিপ্তভাবে হালকা বৃষ্টিপাতের হওয়ায় দমকল কর্মীদের সেখানে যাওয়ার অনুমতি দেয়া হয়েছে। সেখানে ব্যাপক দাবানল ছড়িয়ে পড়ার কারণে এর আগে ওই এলাকায় যাওয়া প্রায় অসম্ভব ছিল।


তিনি আরো বলেন, এ প্রদেশের উত্তর অংশেও অত্যন্ত ভয়াবহ পরিস্থিতি বিরাজ করছে।


খবরে বলা হয়, উত্তর আলবার্টার ফক্স লেক এলাকায় ভয়াবহ দাবানলে ২০টি বাড়ি, একটি দোকান ও একটি পুলিশ স্টেশন পুড়ে গেছে এবং এমন পরিস্থিতির মুখে সেখানের কিছু বাসিন্দাকে নৌকা ও হেলিকপ্টারে করে সরিয়ে নিতে হয়েছিল।


সাম্প্রতিক বছরগুলোতে কানাডার পশ্চিমাঞ্চলে প্রচন্ড তাপমাত্রার কারণে বারবার দাবানল ছড়িয়ে পড়তে দেখা যায়।

আরও খবর